News

আবার চিনা অ্যাপ নিষিদ্ধে ফুঁসছে বেজিং, শুধরে নিক ভুল হুঁশিয়ারি

ভারতে নতুন করে ৪৭টি চিনা অ্যাপকে নিষিদ্ধ করার সিদ্ধান্ত নেওয়ার ঠিক ২৪-ঘণ্টার মধ্যেই ভারতকে সতর্ক বার্তা দিল ক্ষুব্ধ বেজিং। সেইসঙ্গে ‘ভুল সংশোধন’ করার হুঁশিয়ারি দিল ক্ষুব্ধ বেজিং। একটি বিবৃতিতে জানানো হয় চিনা  দূতাবাসের তরফে, ভারতের এই পদক্ষেপের কারণে চিনা অ্যাপস সংস্থাগুলির অধিকার হরণ হয়েছে। তা যথা শিগ্রহই ভারতের সংশোধন করা উচিত।

চিনা দূতাবাসের মুখপাত্র জি রং বলেন, আমরা খবর  পেয়েছি গত ২৯ জুন উইচ্যাট সহ ৫৯টি চিনা অ্যাপ নিষিদ্ধ বলে ঘোষণা করে ভারত সরকার। চিনা দূতাবাসের তরফে আরও দাবি করা হয়, এরকারণে চিনা সংস্থাগুলির বৈধ অধিকার ও স্বার্থের ক্ষতি হয়েছে। চিন ইতিমধ্যেই ভারতের কাছে এই পদক্ষেপের বিরুদ্ধে নোটিশ দেওয়া হয়েছে এবং সেই সঙ্গে, এই ভুল ঠিক করে নিতে বলা হয়েছে। জি রং হুঁশিয়ারি দিয়ে বলে, চিনা সংস্থাগুলির বৈধ অধিকার ও স্বার্থ রক্ষার্থে বেজিং সমস্ত প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেবে।

59 চায়নিস অ্যাপ্লিকেশন কে ব্যান্ড করল ভারত সরকার

সোমবার দ্বিতীয় দফায় ইন্ডিয়ান মিনিস্ট্রি অফ ইলেক্ট্রনিক্স এণ্ড আইটি ৪৭টি চিনা অ্যাপ নিষিদ্ধ করার সিদ্ধান্ত নেয় তার সাথে PUBG Corporation ও TENCENT Games এর  PUBG MOBILE এর সাথে আরও ২৭৫ টি অ্যাপ পর্যালোচনায় রেখেছে ভারত সরকার। সূত্রের খবর, ভারত সরকার খুব শীঘ্রই সেই তালিকা প্রকাশ করতে চলেছে। জানা গিয়েছে, তবে দ্বিতীয় তালিকায় যে চিনা অ্যাপগুলি স্থান দখল করেছে তার অধিকাংশই হল TIKTOK LITE, Cam Scanner Advance, HELO LITE এর  মত ‘ক্লোন অ্যাপ’। দেশের সুরক্ষা, নিরাপত্তা ও সার্বভৌমত্ব রক্ষার জন্যই এই পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে ভারত সরকার তরফে সূত্রের খবর। কেন্দ্রের দাবি, ভারতের নিরাপত্তা নিয়ম লঙ্ঘন, ব্যবহারকারীদের সুরক্ষাও বিপন্ন প্রভৃতি কারণে অ্যাপগুলিকে নিষিদ্ধ করা হয়েছে। প্রথম থেকেই অভিযোগ আসে বেজিংয়ের সঙ্গে তথ্য শেয়ার করত সংস্থাগুলি, এর উত্তরে জি রং বলেন, চিনা সংস্থাগুলি আন্তর্জাতিক নিয়ম ও স্থানীয় আইন ও নিয়ন্ত্রণ পালন করে সর্বদাই।

চিনা মুখপাত্র জি রং বলেন, লাদাখের গালওয়ান উপত্যকায় চিনা বাহিনীর বর্বরোচিত হামলায় ২০ ভারতীয় জওয়ানের মৃত্যু হয়, চরমে ওঠে ভারত-চিন সীমান্ত সংঘাত। প্রতিবাদে চিনা পণ্য প্রত্যাখ্যানের ডাক ওঠে দেশজুড়ে।এই কারণেই চিনা অ্যাপ গুলিকে নিষিদ্ধ করছে ভারত। কিন্তু বিনিয়োগকারীদের বৈধ অধিকার ও স্বার্থ রক্ষা করার দায়িত্ব সেই দেশের সরকারের এবং ভারতের সব শর্ত মেনেই তারা সেখানে ব্যবসা করছে।

Related Articles

Back to top button